Breaking News

গাড়ির মধ্যেই ট্রেডমিল, ফ্রিজ, ওভেন! হুন্ডাইয়ের এই নতুন মডেল যেন আস্ত একটা বাড়ি

চার্জিংয়ের ব্যবস্থা, ট্রে'ডমিল, লাউডস্পিকার, পোর্টেবল ওভেন থেকে রেফ্রিজারেটর— কী নেই গাড়ির ভিতরে! একে গাড়ি না বলে যেন চলমান বাড়ি বলাই ভাল! মূলত দুর্গম পাহাড়ি উপত্যকায় ক্যাম্পিংয়ের কথা মাথায় রেখে এই বিশেষ প্রযুক্তির ইলেকট্রিক কার নিয়ে এসেছে হুন্ডাই। মডেলের নাম ‘আইওনিক’। উন্নত মাইলেজ আর লেটেস্ট ডিজাইনের যন্ত্রপাতির ব্যবহার তো রয়েছেই। ফলে পাহাড়ে পৌঁছে কোনও কিছুর রসদ নিয়ে দুশ্চিন্তা করতে হবে না। ৩.৬ কিলোওয়াটের চার্জার থাকায় ওভেন, টিভি, ফ্রিজ আরামসে চালানো যাব'ে। সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় প্রকাশিত প্রোমোশনাল ভিডিওতে এমনটাই দাবি করেছে হুন্ডাই ক'র্তৃপক্ষ।

অটোমোবাইলের দুনিয়ায় ‘হটকে’ কিছু একটা করার সুবাদে হুন্ডাই বরাবরই প্রচারের আলোয় এসেছে। ‘টেসলা’-র জন্মল'গ্ন থেকে জড়িয়ে থাকাই হোক, কিংবা ভোক্সওয়াগন কিংবা বিএমডব্লু-র মতো ব্র‍্যান্ডের স'ঙ্গে গাঁটছড়া বাঁধা— গাড়ির সাম্রাজ্যে দক্ষিণ কোরিয়ার এই সংস্থা ধা'রাবাহিক সুনাম কুড়িয়েছে। সেকথা মনে করিয়ে দিয়েছেন হুন্ডাইয়ের ভাইস প্রেসিডেন্ট হিউয়েং সু কিম। তিনি বলেন, “আমা'দের বরাবর লক্ষ্য ছিল গাড়িতে এমন প্রযুক্তি আনা, যার সাহায্যে সাধারণ মানুষ ঘরের কাজ আর বাইরের দুনিয়াকে মেলাতে পারে। তাই নতুন নতুন ফিচার যোগ করে আমর'া ক্রেতাদের কাছে টানতে চেয়েছি।”

নয়া বৈশিষ্ট্যগু'লি ঠিক কীরকম? হুন্ডাই ক'র্তৃপক্ষ জানিয়েছেন, ‘আইওনিক’ মডেলে ‘বাই-ডাইরেকশনাল’ চার্জিংয়ের ব্যবস্থা রয়েছে। যার অর্থ, যে কোনও ইলেকট্রনিক যন্ত্রপাতি গাড়ির উন্নত ব্যাটারির সাহায্যে চার্জ করা যাব'ে। আর পাঁচটা গাড়িতেও এই ব্যবস্থা রয়েছে। কিন্তু সেখানে মোবাইল কিংবা বড়জোর একটা ল্যাপটপ চার্জ দেওয়া যেতে পারে। এর চাইতে শক্তিশালী কিছু দিলেই গাড়ির ব্যাটারি হু হু করে কমতে থাকে। আইওনিক এখানেই আলাদা। ক্যাম্পিংপ্রেমী যুবক-যুবতীদের আলাদা করে জেনারেটর কিংবা ডুয়াল ব্যাটারি নিয়ে যাওয়ার দরকার নেই। গাড়ির চার্জিং সকে'টেই তাঁরা গৃহসুখ উপভোগ করতে পারবেন বলে সংস্থার তরফে দাবি করা হয়েছে।

কিন্তু লাগাতার ব্যবহারের জেরে যদি সত্যি গাড়ির ব্যাটারি শেষ হয়ে যায়? এর জন্যও বিকল্প ব্যবস্থা রয়েছে। গাড়ির ছাদে আট'কানো থাকবে সোলার প্যানেল। যার সাহায্যে ব্যাটারি নতুন করে চা'ঙ্গা হয়ে উঠবে।

এই মডেল নতুন প্রজন্মের ক্রেতাদের মন ভোলাবে। আশাবাদী সিওলের ইউজিন ইনভেস্টমেন্ট অ্যান্ড সিকিওরিটিজের অ্যানালিস্ট লি জে-ইল। তিনি বলেন, ‘চলতি বছরে হুন্ডাইয়ের নয়া দৌড় শুরু হবে। আইওনিক-কে দিয়েই হয়তো পালাবদলের আরম্ভ।’

About Admin_dhakasongbad

Check Also

পর্দায় প্রথমবার একসঙ্গে হাজির হচ্ছেন অক্ষয় খান্না এবং রবিনা ট্যান্ডন

এই প্রথমবার একস'ঙ্গে পর্দায় হাজির হচ্ছেন অক্ষয় খান্না এবং রবিনা ট্যান্ডন। সৌজন্যে,বিজয় গু'ত্তের ওয়েব সিরিজ …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *